সন্দ্বীপ রক্ষায় যা যা প্রয়োজন তা করা হবে– পানি সম্পদ প্রতিমন্ত্রী কর্নেল( অব.) জাহিদ ফারুক

0 ১২৬

ইলিয়াস কামাল বাবুঃ যথাসময়ে কাজ সম্পন্ন না করে জনগনের দুর্ভোগ সৃষ্টি করায় সারিকাইত বেড়িবাঁধের নির্বাচিত ঠিকাদার ডলি কনষ্ট্রাকশনের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে। সন্দ্বীপের চতুর্দিকে টেকসই বেড়িবাঁধ নির্মানে প্রায় ৫২৩ কোটি টাকা ব্যয়ে একটি নতুন প্রকল্প তৈরী হচ্ছে।১৫ নভেম্বর,রবিবার, দুপুরে সন্দ্বীপে কাজী অাফাজ উদ্দিন হাই স্কুল মাঠে উপজেলা আওয়ামীলীগ আয়োজিত এক সুধী সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে পানি সম্পদ প্রতিমন্ত্রী কর্নেল (অব.)জাহিদ ফারুক এ কথা বলেন। তিনি সন্দ্বীপবাসীর উদ্দেশ্যে বলেন,জননেত্রী শেখ হাসিনা আপনাদের মত সাগর পাড়ের মানুষের দুঃখ দুর্দশা লাঘবে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়ার জন্য আমাকে দায়িত্ব দিয়েছেন। আমি যা বলে যাই তা বাস্তবায়নের চেষ্টা করি।প্রসঙ্গক্রমে তিনি বলেন–সন্দ্বীপবাসী এম.পি মিতা ‘ র সাথে মত একজন কর্মবীর পেয়েছেন বিধায় এত উন্নয়ন হচ্ছে, আমি আজ এখানে আসতে বাধ্য হয়েছি। তিনি সংসদে আমার পিছনের সাড়িতে বসেন,সন্দ্বীপের উন্নয়নে ব্যবস্থা গ্রহন করতে আমাকে প্রায়ই অনুরোধ করতেন।বিশেষ অতিথির বক্তব্যে আলহাজ্ব মাহফুজুর রহমান মিতা এম.পি বলেন,পানি উন্নয়ন বোর্ডের কর্মকর্তাদের তদারকি না থাকায় বেড়িবাঁধ নির্মান ও সংস্কার কাজ সঠিকভাবে হচ্ছে না । এজন্য তিনি সন্দ্বীপে পানি উন্নয়ন বোর্ডের সাব ডিভিশন পুনঃ চালু করার জোর দাবী জানান।আওয়ামীলীগ নেতা শাহেদ সারওয়ার শামীমের সঞ্চালনায় এবং সন্দ্বীপ উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি মাষ্টার শাহজাহান এর সভাপতিত্বে এ সভায় অন্যান্যদের মধ্যে আরো বক্তব্য রাখেন-উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান মাঈন উদ্দিন মিশন,সারিকাইত ইউপি চেয়ারম্যান ফখরুল ইসলাম পনির।সভাশেষে সংবাদকর্মীদের উদ্দেশ্যে এক সংক্ষিপ্ত ব্রিফিংয়ে প্রতিমন্ত্রী বলেন,সন্দ্বীপ রক্ষায় যা যা প্রয়োজন তার ব্যবস্থা নেয়া হবে।এর আগে একই দিন সকালে সন্দ্বীপের উড়িরচরের ভাঙ্গন পরিদর্শন ও সেখানে আয়োজিত এক সভায় ভাষণ দান শেষে দুপুর ১২টার দিকে হেলিকপ্টার যোগে সন্দ্বীপের সাংসদ মাহফুজুর রহমান মিতা সহ প্রতিমন্ত্রী কর্ণেল(অবঃ)জাহিদ ফারুক সন্দ্বীপের সারিকাইতস্থ কাজী আফাজ উদ্দিন হাই স্কুল মাঠে নামেন। এ সময় মন্ত্রীকে স্বাগত জানিয়ে নেতা-কর্মীরা মিছিলে মিছিলে মুখরিত করে তোলে স্কুল প্রাঙ্গন।

আপনার মতামত লিখুন

Your email address will not be published.