১নং চরমটুয়া ইউনিয়ন বাসীর আস্থা এবং ভরসার প্রতীক,বর্তমান চেয়ারম্যান কামাল উদ্দিন বাবলু ।

0 ২৫৭

নোয়াখালী জেলা ব্যুরো প্রধানঃ কামাল উদ্দিন বাবলু নোয়াখালী আওয়ামী লীগের এক পরিচিত ও বিশ্বস্ত নাম।কামাল উদ্দিন বাবলু নামের এই আওয়ামী নেতাকে ঘিরে রয়েছে পুরো জেলায় মানুষের মুখে রয়েছে নানা মুখরোচক ও গর্বের গল্প ।কামাল উদ্দিন বাবলু তার জন্মস্থানে যেমন জনপ্রিয়,ঠিক তেমনি জনপ্রিয় সকল দল মত নির্বিশেষে জেলার সকল দলের নেতাকর্মীদের কাছে ।বাংলাদেশের আওয়ামী লীগের দূর্দিনে হাতে গোণা যে কয়েকজন ত্যাগী,সংগ্রামী নেতৃবৃন্দ নোয়াখালী জেলা আওয়ামী লীগের সাথে ওতোপ্রোতো ভাবে জড়িত ছিলো এবং বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ করার কারণে যাদের উপর নানান হামলা মামলা সহ নির্যাতনের করুণ ভয়াবহতা নেমে এসেছিলো,তাদের মধ্যে একজন কামাল উদ্দিন বাবলু ও তার পরিবার ।এক কথায় বলা চলে কামাল উদ্দিন বাবলু বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের জন্য নিজের জীবন টাও দিয়ে দিতে প্রস্তুত ।


কামাল উদ্দিন বাবলু ২০০৯ সাল থেকে নোয়াখালী সদর উপজেলার আওতাধীন ১নং চরমটুয়া ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক হিসেবে দায়িত্ব পালন করে আসছেন।নোয়াখালী-৪ (সদর-সূবর্ণচর)আসনের সংসদ ও নোয়াখালী জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক একরামুল করিম চৌধুরীর নির্দেশে সফলতার সাথে ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সকল অঙ্গ সহযোগী সংগঠনের নেতৃ বৃন্দের হৃদয়ে জায়গা করে নিয়েছেন কামাল উদ্দিন বাবলু।কামাল উদ্দিন বাবলু ছাড়া ১নং চরমটুয়া ইউনিয়ন পরিষদের সর্বস্থরের জনগণ যেনো অসহায়।ইউনিয়নের সকল শ্রেণী পেশার মানুষের একমাত্র ভরসার স্থল কামাল উদ্দিন বাবলু।সব সময় সকলের বিপদে আপদে সবার আগে ছুঁটে গিয়ে বিপদগ্রস্ত মানুষের পাশে দাঁড়ানো যেনো রীতিমতো অভ্যাসে পরিণত হয়ে গেছে ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের এই সাধারণ সম্পাদকের ।

কামাল উদ্দিন বাবলু দলমত নির্বিশেষে সকল জনগণের প্রতি এমন মহানুভবতার কারণে তার প্রতি সন্তুষ্ট হয়ে ১নং চরমটুয়া ইউনিয়ন বাসী ও জেলা আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীদের নির্দেশে ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন করে অত্যান্ত দক্ষতা ও সফলতার সহিত ইউনিয়ন চেয়ারম্যানের দায়িত্ব কাঁধে নিয়ে ইউনিয়ন বাসীর সকল সমস্যা সমাধান করতে দিন রাত অক্লান্ত পরিশ্রম করে যাচ্ছেন কামাল উদ্দিন বাবলু চেয়ারম্যান।কামাল উদ্দিন বাবলু চেয়ারম্যান ১নং চরমটুয়া ইউনিয়ন পরিষদের গত দুই,দুই বারের নির্বাচিত সফল চেয়ারম্যান হিসেবে দায়িত্ব পালন করে যাচ্ছেন।করোনা কালীন সময়ে যেখানে বাংলাদেশের অনেক জেলা,উপজেলা ও ইউনিয়নের সাধারণ জনগণ না খেয়ে দিন-রাত যাপন করেছে,ঘরে খাবার না থাকার কারণে দিনের পর দিন অতি কষ্টে জীবন যাপন করেছে,সেখানে নোয়াখালী সদর উপজেলার আওতাধীন ১নং চরমটুয়া ইউনিয়নের চেয়ারম্যান কামাল উদ্দিন বাবলু সরকারের সকল অনুদান ও নিজস্ব অর্থায়নে বার বার ইউনিয়ন সকল শ্রেণী পেশার মানুষের মধ্যে ত্রাণ সামগ্রী সহ সকল কিছু ধরনের খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করে নোয়াখালী জেলার সকল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানদের মধ্যে অনন্য দৃষ্টান্ত স্থাপন করলেন চেয়ারম্যান কামাল উদ্দিন বাবলু ।

চেয়ারম্যান কামাল উদ্দিন বাবলুর এসব গুণগান ও প্রশংসার বিষয়ে সরেজমিনে ১নং চরমটুয়া ইউনিয়নে গেলে বীর মুক্তিযোদ্ধা সন্তান এবং নোয়াখালী জেলা ছাত্রলীগের সাবেক মুক্তিযুদ্ধ ও গবেষণা বিষয়ক সম্পাদক,বাংলাদেশ মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চের কেন্দ্রীয় কমিটির সহ-সভাপতি,নোয়াখালী জেলা মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চের সভাপতি ও ১নং চরমটুয়া ইউনিয়নের ২নং ওয়ার্ডের স্থায়ী বাসিন্দা সাফায়েত হোসেন জুয়েল রানা বলেন,আমরা আমাদের ১নং চরমটুয়া ইউনিয়ন পরিষদে কামাল উদ্দিন বাবলু চেয়ারম্যানের মতো একজন জনদরদী জনপ্রতিনিধি পেয়ে নিজেদের কে অনেক সৌভাগ্যবান মনে হয় । আমাদের ইউনিয়নের এমন একজন ব্যাক্তি নেই,যে বলতে পারবে,চেয়ারম্যান কামাল উদ্দিন বাবলুর কাছে কখনো কোনো সহযোগিতার জন্য গিয়ে খালি হাতে ফিরে এসেছে।আমরা মনে করি চেয়ারম্যান কামাল উদ্দিন বাবলু আমাদের জন্য আল্লাহর প্রদত্ত একজন ফেরেশতা স্বরূপ মানুষ।যিনি রাতের অন্ধকারে তার ইউনিয়নের প্রতিটি মানুষের খোঁজ খবর নেওয়ার জন্য বেরিয়ে পড়েন।এমন একজন চেয়ারম্যানের জন্যই আজ আমাদের ১নং চরমটুয়া ইউনিয়ন পরিষদ সম্পূর্ণ সন্ত্রাস ও মাদক মুক্ত । চেয়ারম্যান কামাল উদ্দিন বাবলুর জন্যই সম্পূর্ণ র্নিভয়ে দিনে-রাতে চলাচল করতে পারে এলাকর
সকল ছেলে-মেয়ে ।


১নং চরমটুয়া ইউনিয়ন পরিষদের সর্ব স্থরের মানুষের এখন একটাই প্রাণের দাবী,কামাল উদ্দিন বাবলু যতোদিন বেঁচে থাকবে,ততোদিন তাকেই চেয়ারম্যান হিসেবে দেখতে চাই এবং তার নেতৃত্বেই আগামীর জন্য সুন্দর,শৃঙ্খল,সন্ত্রাস মুক্ত,মাদক মুক্ত,অসাম্প্রদায়িক ভেদাভেদহীন ১নং চরমটুয়া ইউনিয়ন গড়তে চাই ।

আপনার মতামত লিখুন

Your email address will not be published.

error: Content is protected !!